কেন খাবেন মিষ্টি কুমড়া

ভিটামিন এ সমৃদ্ধ কুমড়া সবজি হিসেবে বেশ জনপ্রিয়। সবজি হিসেবে আলাদা করে তো খাওয়াই যায়। পাশাপাশি বিভিন্ন ধরনের মাছ, মাংস, ডালের সঙ্গে কুমড়া রান্না করে খাওয়ার চল রয়েছে নানা জায়গায়। ভিটামিন এর পাশাপাশি মিষ্টি কুমড়ায় প্রচুর জিঙ্ক রয়েছে যা অস্টিওপোরোসিস প্রতিরোধ করে। রোগ প্রতিরোধের ক্ষমতা বাড়ায়। চুল পড়া, ত্বকের সমস্যাও দূর করে। ত্বকে বয়সের ছাপ পড়তে দেয় না।

মিষ্টি কুমড়ায় থাকা বিটাক্যারোটিন শক্তিশালী অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট। এই ধরনের অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট শরীরের ফ্রি র‌্যাডিক্যালকে নষ্ট হতে দেয় না। দূষণ, মানসিক চাপ, শাক, সবজিতে থাকা সার, কীটনাশকের কারণে ফ্রি র‌্যাডিক্যাল নষ্ট হয়ে যায়। ফ্রি র‌্যাডিক্যাল নষ্ট হলে শরীরের ভাল কোষগুলো নষ্ট হয়ে যায়।

কুমড়ায় রয়েছে এল ট্রিপটোফ্যান, যা অবসাদ কমায়। উচ্চ রক্তচাপ, হৃদরোগ থাকলে রোজ কুমড়া খান। কুমড়ায় আছে পটাশিয়াম, যা এই সমস্যাগুলোর মোকাবিলা করে। অ্যালার্জির সমস্যায়ও দারুণ কাজ দেয় কুমড়া। ঠান্ডা লাগা, সর্দির হাত থেকে বাঁচায়।

Print Friendly, PDF & Email

Related Articles

Back to top button