পল্লবীতে বৃদ্ধকে পিটিয়ে পা ভাঙ্গলেও মামলা নেয়নি পুলিশ

নিজস্ব প্রতিবেদক

রাজধানীর পল্লবীতে ষাটোর্ধ এক বৃদ্ধকে পিটিয়ে জখম  করেছে এক ভবন মালিকের
ছেলে।  ভবন মালিকের ওই ছেলের বিরুদ্ধে  ১২ দিন আগে থানায় লিখিত  অভিযোগ
জমা  দিলেও মামলা নেয়নি পুলিশ।  ভুক্তভোগী ওই পরিবারের আশঙ্কা  পুলিশ ও
ভবন মালিকের   গোপন সমঝোতার কারনে তারা ন্যায় বিচার থেকে বঞ্চিত।আর এ
কারনেই পুলিশ  মামলা নিতে গড়িমসি করছেন।
ঘটনাটি ঘটেছে গত মাসের ২৬ তারিখ রোববার পল্লবীর সাড়ে এগারো পুলিশ ফাঁড়ি
সংলগ্ন ১১/২ নির্মানাধীন ভবনে। আহত ওই বৃদ্ধের নাম মোহাম্মদ আলী
চৌকিদার(৬০)। তিনি ওই ভবনের নাইট গার্ড।  যাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ তাদের
নাম রাব্বি (৩০) ও নাসির (৪৫)। এদের মধ্যে রাব্বি ওই ভবন মালিকের ছেলে আর
নাসির ভবন মালিকের দোকান ম্যানেজার।
এ ঘটনায় ২৮ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার পল্লবী থানায় একটি লিখিত অভিযোগে জমা দেন
মোহাম্মদ আলী  । অভিযোগে জানা যায়,
ঘটনার দিন রাত  ৮ টার দিকে রাব্বির সাথে বনলতা সুইটসের কয়েকজন দোকান
কর্মচারীর কথা কাটাকাটি হয়। এ  ঘটনাটি রাব্বির বাবা ভবন মালিক
জাহাঙ্গীরকে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে জানায় মোহাম্মদ আলী । দোকান
কর্মচারীদের সাথে কথা কাটাকাটি করায়  রাব্বিকে তার বাবা ফোন করে বকাজকা
করেন। রাব্বি এক পর্যায়ে তার বাবার মুখ থেকে জানতে পারেন দোকান
কর্মচারীদের সাথে কথা কটাকটির ঘটনাটি নাইট গার্ড মোহাম্মদ আলী তার বাবাকে
জানিয়েছে। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে  রাব্বি  বয়ঃবৃদ্ধ  মোহাম্মদ আলীকে কয়েক দফা
মারধর করেন। লাঠি দিয়ে আঘাত করে পায়ের গোড়ালি ভেঙ্গে দেন। এক পর্যায়ে পা
দিয়ে গলাচেপে ধরে শ্বাসরোধ করেন। আশপাশের লোকজন এসে তাকে এ যাত্রায়
বাঁচিয়ে তোলেন।
মোহাম্মদ আলী বলেন, আমি এখন পঙ্গু হাসপাতালে ভর্তি । পা ভেঙ্গে গেছে ।
পুলিশ মামলা নেয় না । খালি ঘুরায়। তিনি বলেন, রাব্বি ও নাসির দুজনই আমাকে
সে দিন একেবারে মেরে ফেলতে চেয়েছিলো। আমার কোন দোষ নাই। এর আগেও ২ জন
নাইট গার্ডকে পিটিয়ে বিদায় করেছে রাব্বি তার বন্ধুদের সাথে সারাক্ষন নেশা
করে।   বাধা দিলে খারাপ আচরন করে।
এ ব্যাপারে পল্লবী থানার এস আই শফিকুল বলেন,  মিরপুর  সাড়ে এগারো বনলাতার
এক গার্ডকে নিয়ে একটি মারামারির ঘটনায় একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। আপনি
তাদের থানায় পাঠান । দেখি কি করতে পারি ।

Print Friendly, PDF & Email

Related Articles

Back to top button