জোট বেঁধেছে টেলিনর ও গুগল ক্লাউড

নরওয়ের টেলিকমিউনিকেশন প্রতিষ্ঠান টেলিনর ও আলফাবেট ইঙ্কের গুগল ক্লাউড জোট বেঁধেছে। টেলিনরের বৈশ্বিক কার্যক্রম ডিজিটালাইজ করার লক্ষ্যে এ জোটের সৃষ্টি। সোমবার দুই কোম্পানি এ তথ্য জানিয়েছে। এখন থেকে দুই কোম্পানি যৌথভাবে সেবাদান করবে। এ অংশীদারিত্বের ফলে নিজস্ব আইটি ও নেটওয়ার্ক কাঠামোর সক্ষমতা বাড়াতে টেলিনর এখন থেকে গুগল ক্লাডের সেবা গ্রহণ করবে।

টেলিনর বর্তমানে ১৭ কোটি ২০ লাখ গ্রাহককে সেবা দিচ্ছে। প্রতিষ্ঠানটির মোট আয়ের অর্ধেক আসে এশিয়া থেকে। বাকি অর্ধেক আসে নর্ডিক দেশগুলো থেকে। ডিজিটালাইজেশন প্রকল্পটি টেলিনরের নতুন আয়ের কৌশল খুঁজে পাওয়ারও একটি অংশ বলে জানিয়েছেন টেলিনরের প্রধান নির্বাহী। তিনি মনে করেন, সফটওয়্যারের উপর টেলিকম নেটওয়ার্কের ক্রমবর্ধমান নির্ভরশীলতার মধ্যে টেলিনরের ক্লাউডনির্ভর ব্যবসা তৈরি করা প্রয়োজন এবং গুগলের ডেটা ব্যবস্থাপনা জ্ঞান, মেশিন লার্নিং এবং কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা সক্ষমতা প্রতিষ্ঠানটিকে এ কাজের উপযোগী করে তুলেছে।

টেলিনরের প্রধান নির্বাহী সিগভে ব্রেককে বলেছেন, “আমি মনে করি সংযুক্ততাকে ছাড়িয়ে এবং গ্রাহককে সংযুক্ত করার পাশাপাশি নতুন সেবা তৈরিতে টেলকোর ভবিষ্যৎ নিহিত। ডিজিটালাইজ করা মানে পরিচালনা ব্যবস্থা আরও মসৃণ করা। কোনো বিভ্রাট ঘটার আগেই সেটি আঁচ করতে সক্ষম হওয়া…  ব্যাকএন্ড প্রক্রিয়ায় পরিবর্তন আনলে ক্রেতারাও ভালো সেবা পাবেন।”

গুগল ক্লাউডের প্রধান নির্বাহী থমাস কুরিয়ান জানান, ‌‘এটি শুধু ডেটা সেন্টার অপটিমাইজ করা বা ক্লাউডে ডেটা সেন্টার নিয়ে আসা নয়। আমরা ক্ষুদ্র ও মাঝারি উদ্যোগ নিয়ে যে কাজটি করছি… তাতে শুধু আমরা প্রযুক্তি সরবরাহকের ভূমিকা পালন করছি না, ক্রেতাদের জন্য যৌথভাবে সেবাখাতকে উন্নত করার চেষ্টা করছি।’

Print Friendly, PDF & Email

Related Articles

Back to top button